০৮:১৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

শিবালয়ের পদ্মা রিভারভিউ হোটেল অ্যান্ড রিসোর্টে স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ,পলাতক রয়েছে ধর্ষণকারী

মানিকগঞ্জের শিবালয় উপজেলার  পাটুরিয়া ফেরিঘাট এলাকার

‘পদ্মা রিভারভিউ হোটেল অ্যান্ড রিসোর্টে‘  জন্মদিনের অনুষ্ঠান পালনের কথা বলে নিয়ে এক স্কুলছাত্রীকে নিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় মামলা হলেও মূল আসামি বিপ্লব (২৪) ধরাছোঁয়ার বাইরে। তবে তার দুই সহযোগী ওই শিক্ষার্থীর খালাতো বোন আর তার প্রেমিক দুজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তারা বর্তমানে কারাগারে আছেন।

গত ২৮ এপ্রিল বিকালে পদ্মা রিভার ভিউয়ের তৃতীয়তলায় এ ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। এ বিষয়ে গত ১ মে থানায় মামলা দায়ের করেন ধর্ষণের শিকার শিক্ষার্থীর বাবা।

মামলার অভিযোগ ও পুলিশ জানায়, ওই শিক্ষার্থী মানিকগঞ্জ শহরের একটি হাইস্কুলের অষ্টম শ্রেণিতে লেখাপড়া করে। গত ২৮ এপ্রিল তার জন্মদিন ছিল। জন্মদিন পালনের কথা বলে তারই আপন খালাতো বোন ও তার প্রেমিক কৌশলে পাটুরিয়া ঘাটে পদ্মা রিভার ভিউতে নিয়ে আসে। এরপর তৃতীয়তলায় দুটি কক্ষ ভাড়া নেয় তারা। সেখানে একটি কক্ষ সাজিয়ে জন্মদিনের কেক কাটা হয়।

এরপর কৌশলে ওই শিক্ষার্থী ও বখাটে বিপ্লবকে এক রুমে রেখে খালাতো বোন আশা (১৮) ও তার প্রেমিক সাকিব (২৪) পাশের রুমে চলে যায়। এ সুযোগে বিপ্লব জোরপূর্বক ওই শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ করে। ধর্ষণের পর ধর্ষক বিপ্লব ঘটনাটি কাউকে না বলতে হত্যার হুমকি দেয়। এরপর তারা সবাই রিসোর্ট থেকে বেরিয়ে আসে।

ঘটনার রাতে ওই শিক্ষার্থী বাড়ি ফিরে তার মাকে ঘটনা খুলে বলে। এদিকে ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর ক্ষমতাসীন দলের এক প্রভাবশালী নেতার মধ্যস্থতায় ওই শিক্ষার্থীর খালাতো বোন আশা ও তার প্রেমিক সাকিবের বিয়ে সম্পন্ন হয়; কিন্তু মামলা হওয়ার পর তারা দুজনেই পুলিশের হাতে ধরা পড়ে।

শিবালয় থানার ওসি আব্দুর রউফ সরকার জানান, ধর্ষণের ঘটনায় শিক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। দুই আসামি বর্তমানে জেলহাজতে রয়েছে। মূল আসামি বিপ্লবকে ধরতে কাজ করছে পুলিশ।

 

Tag :
About Author Information

জনপ্রিয় সংবাদ

পারফেক্ট ফুটওয়্যার লিমিটেডের বার্ষিক ডিলার সম্মেলন অনুষ্ঠিত

শিবালয়ের পদ্মা রিভারভিউ হোটেল অ্যান্ড রিসোর্টে স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ,পলাতক রয়েছে ধর্ষণকারী

প্রকাশ: ০৩:০৯:৪৯ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ মে ২০২৪

মানিকগঞ্জের শিবালয় উপজেলার  পাটুরিয়া ফেরিঘাট এলাকার

‘পদ্মা রিভারভিউ হোটেল অ্যান্ড রিসোর্টে‘  জন্মদিনের অনুষ্ঠান পালনের কথা বলে নিয়ে এক স্কুলছাত্রীকে নিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় মামলা হলেও মূল আসামি বিপ্লব (২৪) ধরাছোঁয়ার বাইরে। তবে তার দুই সহযোগী ওই শিক্ষার্থীর খালাতো বোন আর তার প্রেমিক দুজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তারা বর্তমানে কারাগারে আছেন।

গত ২৮ এপ্রিল বিকালে পদ্মা রিভার ভিউয়ের তৃতীয়তলায় এ ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। এ বিষয়ে গত ১ মে থানায় মামলা দায়ের করেন ধর্ষণের শিকার শিক্ষার্থীর বাবা।

মামলার অভিযোগ ও পুলিশ জানায়, ওই শিক্ষার্থী মানিকগঞ্জ শহরের একটি হাইস্কুলের অষ্টম শ্রেণিতে লেখাপড়া করে। গত ২৮ এপ্রিল তার জন্মদিন ছিল। জন্মদিন পালনের কথা বলে তারই আপন খালাতো বোন ও তার প্রেমিক কৌশলে পাটুরিয়া ঘাটে পদ্মা রিভার ভিউতে নিয়ে আসে। এরপর তৃতীয়তলায় দুটি কক্ষ ভাড়া নেয় তারা। সেখানে একটি কক্ষ সাজিয়ে জন্মদিনের কেক কাটা হয়।

এরপর কৌশলে ওই শিক্ষার্থী ও বখাটে বিপ্লবকে এক রুমে রেখে খালাতো বোন আশা (১৮) ও তার প্রেমিক সাকিব (২৪) পাশের রুমে চলে যায়। এ সুযোগে বিপ্লব জোরপূর্বক ওই শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ করে। ধর্ষণের পর ধর্ষক বিপ্লব ঘটনাটি কাউকে না বলতে হত্যার হুমকি দেয়। এরপর তারা সবাই রিসোর্ট থেকে বেরিয়ে আসে।

ঘটনার রাতে ওই শিক্ষার্থী বাড়ি ফিরে তার মাকে ঘটনা খুলে বলে। এদিকে ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর ক্ষমতাসীন দলের এক প্রভাবশালী নেতার মধ্যস্থতায় ওই শিক্ষার্থীর খালাতো বোন আশা ও তার প্রেমিক সাকিবের বিয়ে সম্পন্ন হয়; কিন্তু মামলা হওয়ার পর তারা দুজনেই পুলিশের হাতে ধরা পড়ে।

শিবালয় থানার ওসি আব্দুর রউফ সরকার জানান, ধর্ষণের ঘটনায় শিক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। দুই আসামি বর্তমানে জেলহাজতে রয়েছে। মূল আসামি বিপ্লবকে ধরতে কাজ করছে পুলিশ।